অর্ডিনারি আইটি https://www.ordinaryit.com/2022/10/probarona-purnima.html

প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস

আপনি কি প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস সম্পর্কে জানতে চাচ্ছেন তাহলে আজকের আর্টিকেলটি আপনার জন্য।কেননা আমি এই আর্টিকেলে প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস এবং প্রবারণা পূর্ণিমা কখন হয়, প্রবারণা পূর্ণিমা কেন হয় সবকিছু নিয়ে আলোচনা করবো।তাই টেনে টেনে না পড়ে সম্পূর্ন পোস্টটি পড়তে থাকুন।


প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস
নিচে আমি আপনাদের জন্য প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস থেকে শুরু করে শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা কি,প্রবারণা পূর্ণিমা কখন হয় এবং প্রবারণা পূর্ণিমা কেন হয় সেগুলো সম্পর্কে ধাপে ধাপে বিস্তারিত আলোচনা করেছি।

পেইজ সূচিপত্রঃ প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস

শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা কি

প্রবারণা পূর্ণিমা হচ্ছে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের পালিত একটি ধর্মীয় উৎসব।এই প্রবারণা পূর্ণিমা আশ্বিনী পূর্ণিমা নামেও পরিচিত। প্রবারণা পূর্ণিমা হচ্ছে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের দ্বিতীয় বৃহৎ ধর্মীয় অনুষ্ঠান। এই প্রবারণা পূর্ণিমা উৎসব পালিত হয় আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে।

সকল পূর্ণিমা তিথি বৌদ্ধদের জন্য কোনো না কোনোভাবে কোন না কোন কারনে শুভদিন। তাই বৌদ্ধরা আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে প্রবারণা পূর্ণিমা উৎসব পালন করে থাকে। আশা করি শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা কি সে সম্পর্কে জানতে পেরেছেন।

প্রবারণা পূর্ণিমা কখন হয়

অন্যান্য ধর্মাবলম্বীদের মতো বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের কিছু উৎসব রয়েছে। শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা হচ্ছে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের একটি ধর্মীয় উৎসব যা তাদের কাছে দ্বিতীয় বৃহত্তম উৎসব। প্রতিবছর আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে এই উৎসবটি বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীরা পালন করে থাকে।
আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে তারা শুভদিন মনে করেন। আর এই দিনটিকে তারা স্মরণ করে তাদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব প্রবারণা পূর্ণিমা পালন করে থাকেন। এই প্রবারনা পূর্ণিমা গৌতম বুদ্ধের আমল থেকে চলে আসছে। এই প্রবারণা পূর্ণিমা সম্পর্কে পুরোপুরি জানতে গেলে আগে প্রবারণা পূর্ণিমা ইতিহাস সম্পর্কে জানতে হবে। তাহলে চলুন প্রবারণা পূর্ণিমা ইতিহাস সম্পর্কে জেনে নিই।

প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস

প্রবারণা পূর্ণিমা শব্দটি হচ্ছে পালি শব্দ।এই শব্দের আভিধানিক অর্থ হচ্ছে অনুরোধ,মিনতি,বর্ষবাস ত্যাগ, শিষ্ঠাচার,ক্ষতিপূরন,বিধি,তৃপ্তি,আহ্বান,নিমন্ত্রণ,নিষেধ,ত্যাগ,শেষ,সমাপ্তি,পায়োশ্চিত্ত,ঋণপরিশোধ, ভিক্ষুদের বর্ষবাস পরিসমাপ্তি ইত্যাদি।

বর্ষাবাস শেষে বুদ্ধ সকল ভিক্ষুগণ একত্রে হয়ে তাদের ভুলত্রুটি একে অপরের কাছে প্রকাশ করে এবং প্রায়শ্চিত্তের আহ্বান জানায়। এছাড়াও ভুলবশত কোন অপরাধ হয়ে থাকলে তার জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করা হয়-এটি হচ্ছে প্রবারণার মূল কথা।
বৌদ্ধদের মতে,গৌতম বুদ্ধ এই প্রবারণা পূর্ণিমা তিথিতে ভারতের সাংকাশ্য নগরে অবতরণ করেন তাবতিংস স্বর্গে মাতৃদেবীকে অভিধর্ম দেশনার পর। তারপরে তিনি মানবজাতির কল্যাণের জন্য সুখ শান্তির জন্য বৌদ্ধ ভিক্ষুদের ধর্ম প্রচারের জন্য নির্দেশ দেন। এই দিনেই গৌতম বুদ্ধের তিন মাসের বর্ষবাসের পরিসমাপ্তি হয়।

কথায় আছে এই তিথিতে গৌতম বুদ্ধ ৬০ জন শিষ্যকে ধর্ম প্রচারের জন্য বিভিন্ন জায়গায় প্রেরণ করেন।‘‘চরত্থ ভিকখবে চারিকং,বহুজন হিথায় বহুজন সুখায়’’এই কথাটি গৌতম বুদ্ধ তার শিষ্যদের বলেন।অর্থাৎ, তোমরা বহুজনের হিতের জন্য, কল্যানের জন্য, সুখের জন্য চারিদিক ছড়িয়ে পড়।

প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - শুভ প্রবারণা পূর্ণিমার শুভেচ্ছা

প্রতিবছর আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে এই প্রবারণা পূর্ণিমা উৎসব হয়ে থাকে। এই দিনে বর্ষবাস শেষে বৌদ্ধদের সকল ভিক্ষুকগণ এক সাথে হয়ে তাদের দোষ ত্রুটি একে অপরের কাছে প্রকাশিত করে এবং তারা প্রায়শ্চিত্তের জন্য আহ্বান জানায়।

প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সালের ১০ ই অক্টোবর বৌদ্ধদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব পালিত হবে। প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সালের অক্টোবর মাসের ১০ তারিখে বাংলা আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে অনুষ্ঠিত হবে।৯ অক্টোবর থেকেই উৎসবটি শুরু হতে থাকবে। এই দিনে সকল বৌদ্ধরা একত্রিত হয়ে প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ পালন করবে।
এতক্ষণ আমি আপনাদের প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সম্পর্কে ধারণা দিলাম। আশা করি প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সম্পর্কে অর্থাৎ প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সালে ১০ ই অক্টোবর হবে সে সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। প্রবারণা পূর্ণিমা কেন হয় অর্থাৎ বৌদ্ধরা কেন এই ধর্মীয় উৎসবটি পালন করে চলুন সে সম্পর্কে জেনে নিন।

প্রবারণা পূর্ণিমা কেন হয় - প্রবারণা পূর্ণিমার ছবি

প্রতিটি ধর্মের ধর্মীয় উৎসব থাকে। ঠিক সেরকম বৌদ্ধদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব হচ্ছে প্রবারণা পূর্ণিমা। প্রতিবছর আশ্বিন মাসের পূর্ণিমা তিথিতে প্রবারণা পূর্ণিমা উৎসব পালিত হয়। বৌদ্ধদের কাছে এই দিনটি অত্যন্ত শুভ দিন।


এই দিনে বৌদ্ধরা একত্রিত হয়ে মানুষের কল্যাণ সাধন,সুখ, শান্তির জন্য তাদের পুর্বে করা দোষ,ভুলত্রুটি ইত্যাদির জন্য প্রায়শ্চিত্ত করে এবং ক্ষমা প্রার্থনা করে। এছাড়াও নানান কার্যক্রমের মাধ্যমে বৌদ্ধরা তাদের এই পবিত্র  প্রবারণা পূর্ণিমা  উৎসব পালন করে থাকেন। buddhist lent 2022 বা প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ সালের এই আশ্বিন মাসে অনুষ্ঠিত হবে।

প্রিয় পাঠক আশাকরি সম্পুর্ন পোস্টটি পড়ে প্রবারণা পূর্ণিমা কি,প্রবারণা পূর্ণিমা ২০২২ - প্রবারণা পূর্ণিমার ইতিহাস সহ প্রবারণা পূর্ণিমা কখন হয় এবং কেন হয় সে সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। আশাকরি তথ্যগুলো আপনার অনেক উপকারে আসবে। এছাড়াও আপনার কোন কিছু জানার থাকলে বা মতামত থাকে তাহলে কমেন্ট সেকশনে জানিয়ে দেবেন,ধন্যবাদ।21021

পরিচিতদেরকে জানাতে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?