অর্ডিনারি আইটি https://www.ordinaryit.com/2021/03/bangla-calendar.html

বাংলা ক্যালেন্ডার ২০২২ - বাংলা মাসের কত তারিখ আজ ২০২২

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার, বাংলা মাসের কত তারিখ আজ ২০২২। ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf, 2022 এর বাংলা ক্যালেন্ডার। বাংলা ক্যালেন্ডার ডাউনলোড, বাংলা ক্যালেন্ডার 2022 নিয়ে বিস্তারিত জেনে নিন।

বাঙালি আর বাঙ্গালিয়ানা দুই ই বাংলা ভাষাভাষী মানুষের সহজাত বৈশিষ্ট্য। প্রাচীন মুঘল সাম্রাজ্যের সম্রাট, সম্রাট আকবরের সময় থেকে পহেলা বৈশাখ ২০২২ কত তারিখ তা ১৪ই এপ্রিল উদযাপনের মধ্য দিয়ে বাঙালি জাতি ফিরে পেয়েছে তাদের নিজেদের ঐতিহ্য আর সংস্কৃতি। 

আরো পড়ুনঃ সরকারি ছুটির তালিকা ২০২২ | সরকারি ক্যালেন্ডার ২০২২

কালে কালে এসব সংস্কৃতিতে যোগ হয়েছে নতুন নতুন সব রীতি নীতি। তাই বাংলা ভাষার মানুষের জন্য তাদেরকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে তাদের নিজেদের বর্ষ সহ আরো অনেক কিছু্‌। 

আজকের আমাদের এই লেখনিটি সাজানো হয়েছে বাঙালি জাতির মানুষের জন্য তাদের বারো মাসের তের পার্বণের তারিখ নিয়ে ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার। ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf।

তাই চলুন দেরি না করে দেখে আসি বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯, আর কবে কখন পালিত হবে এই সব আচার অনুষ্ঠান-

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ এর সূচনাকালঃ

বাঙালি বলতে আমরা সাধারণত মাছে ভাতে বাঙালি বুঝে থাকি কিন্তু আসলেই কি তাই ? আমাদের পহেলা বৈশাখ ২০২২ পালনের রীতি শুরু হয়েছে সেখানে কি আসলেই ভাজা ইলিশ সাথে পান্তা ভাত খাওয়ার রেওয়াজ কি সেই বাঙালি সভ্যতার সূচনালগ্ন থেকেই চলে আসছে?
তাহলে চলুন জেনে আসি এই পহেলা বৈশাখ ২০২২ বা বাংলা সন আসলো কিভাবে? কোথায় এর সূচনা? বাংলা সনের ইতিহাস ঘাটলে দেখা যায় যে, পান্তা আর ভাজা ইলিশের রেওয়াজ তো কোন কালেই ছিল না বরং সেখানে বাংলার মানুষের খাদ্যাভাস এ কখনো এই নিয়ম দেখাও যায়নি। অন্যদিকে পহেলা বৈশাখ ২০২২ এর প্রবর্তন এর সময়কাল হিসেবে দেখা যায় সম্রাট আকবরের সময়কাল কে। 

মুঘল সম্রাট জালালউদ্দিন মোহাম্মদ আকবর ১৫৫৬ সালে তিনি দ্বিতীয় পানিপথের যুদ্ধে আদিল শাহ শূরের সেনাপতি হিমুকে পরাজিত করে দিল্লীর সিংহাসনে বসেন। আর অই সাল থেকেই তিনি মূলত পহেলা বৈশাখ ২০২২ বা বাংলা সনের প্রবর্তন করেন। ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | বাংলা মাসের কত তারিখ আজ ২০২২

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার ও পহেলা বৈশাখ ২০২২ নামকরণঃ

এ বিষয়ে তাকে সার্বিক সহযোগিতা করেন তাঁর সভাসদ জ্যোতির্বিদ আমির ফতুল্লাহ শিরাজী। প্রকৃতপক্ষে সম্রাট আকবরের এই পহেলা বৈশাখ ২০২২ এর মাধ্যমে তার খাজনা আদায়ের এক নতুন পথের সূচনা করেন।

এই উদ্দেশ্য বাস্তবায়নের জন্য ১৫৮৪ খ্রিষ্টাব্দের ১০ বা ১১ মার্চ থেকে 'তারিখ-এ-এলাহি' নামে নতুন এক বছর গণনা পদ্ধতি চালু হয় যা সেই সময়ের কৃষকদের কাছে এটি 'ফসলি সন' নামে পরিচিত হয়, যা পরবর্তীতে 'বাংলা সন' বা 'বঙ্গাব্দ' হিসেবে প্রচলিত হতে থাকে।

আগের সময়ে সময়কাল হিসাবে হিজরি সন প্রচলিত থাকায় কৃষকের কাছ থেকে খাজনা আদায়ের জন্য সময়ের হের ফের হয়ে যেত।

এই সমস্যা সমাধানের জন্যই সম্রাট আকরর মূলত সৌরভিত্তিক সন প্রচলনের ব্যাবস্থা নেন যা কৃষকদের ফসল উৎপাদনের সময়ের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ। ১৫৫৬ সনের ৫ ই নভেম্বর থেকে চালু হয় সন গনণা।

এবং ১৪ই এপ্রিল পালিত হয় পহেলা বৈশাখ ২০২২ বা বাংলা নববর্ষ। যা ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf মতে একি অবস্থানে রয়েছে।
 

বাংলা মাস সমূহ এবং তাদের নামকরণঃ বাংলা মাসের কত তারিখ আজ ২০২২

আমাদের বাঙালি সংস্কৃতিতেও ইংরেজী মাসের মতো ১২ টি মাসের মতো বারটি মাস আছে। সেসব মাস গুলোর অনেক সুন্দর সুন্দর নাম আছে, যেমন-
১. বৈশাখ মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
২. জৈষ্ঠ্য মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৩. আষাঢ় মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৪. শ্রাবণ মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৫. ভাদ্র মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৬. আশ্বিন মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৭. কার্তিক মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৮. পৌষ মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
৯. আগ্রহায়ণ মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
১০. মাঘ মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
১১. ফাল্গুন মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
১২. চৈত্র মাসের ক্যালেন্ডার ২০২২
নামগুলো কালের বিবর্তনে পরিবর্তিত হলেও প্রাথমিক কালে কিন্ত এই নাম ছিল না। বিশেষজ্ঞগণ মনে করেন উপোরক্ত নামগুলো নেওয়া হয়েছে '৭৮ খ্রিস্টাব্দে "সাকা" জাতির রাজত্বের সময় প্রচলিত থাকা বিভিন্ন শাকাব্দ বা নাম থেকে। এছাড়া ধারণা করা হতো, প্রথমের দিকে এই নামগুলি ছিল ফারওয়ারদিন, খোরদাদ, তীর, মুরদাদ, শাহরিয়ার, আবান, আযার, দে, বাহমান ইত্যাদি। নিম্নে ছকের মাধ্যমে দেখানো হলো-

বাংলা মাসের কত তারিখ আজ ২০২২ দিন নির্ধারণ

বর্তমানে বাংলা বছরের প্রথম দিন বলতে আমরা পহেলা বৈশাখ ২০২২ কে বুঝে থাকি। কিন্তু এটি প্রথম থেকেই এমন ছিল না। প্রথম দিকে 'তারিখ-এ-এলাহি'র আগে বাঙালিরা শাকাব্দ অনুযায়ী চৈত্র মাসকে বছরের প্রথম মাস হিসেবে গনণা করতো এবং বাৎসরিক খাজনা ও যাবতীয় হিসসাব-নিকাশ সেই মাস অনুযায়ীই করা হতো।

কিন্তু পরে যখন ৯৬৩ হিজরির প্রথম মাস মহররমকে 'তারিখ-এ-এলাহি'র প্রথম মাস ধরে গণনা করা শুরু হয় তখন তা বৈশাখ মাসের সাথে পুরোপুরি রূপে মিলে যাওয়ায় বৈশাখকেই ধরা হয় 'তারিখ-এ-এলাহি'র প্রথম মাস। তখন থেকেই বৈশাখ মাস ই বাংলা বর্ষের প্রথম মাস হিসেবে গনণা করা হয়। কিন্তু তা পরবর্তীতে  ১৯৮৮ সালের ১৯ জুন থেকে বাংলা একাডেমির সুপারিশ করা পঞ্জিকা গ্রেগরীয় বর্ষপঞ্জি অনুসারে ১৪ এপ্রিল পহেলা বৈশাখ ২০২২ আজো পালিত হয়ে আসছে। 
 
এর পরবর্তীতে সঠিক হিসাব গনণার  জন্য পরিবর্তিত বাংলা সালের দৈর্ঘ্য হয় ৩৬৫ দিন। যেহেতু বাংলা দিন সূর্যোদয় থেকে শুরু হয়। কিন্তু পৃথিবীর সূর্যকে প্রদক্ষিণ করতে ৩৬৫ দিন ৫ ঘণ্টা ৪৮ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড লাগে। তো এই অতিরিক্ত ৫ ঘণ্টা ৪৮ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড এর হিসাব কে আমরা কিভাবে গনণা করব?

প্রতি বছরে এভাবে ৫ ঘণ্টা ৪৮ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড সময় বাদ গেলে সঠিক হিসাবে পেতে সমস্যা হবে। তাই গবেষকরা এই ঘাটতি দূর করার জন্য গ্রেগরিয়ান সালে প্রতি চার বছর পর পর ফেব্রুয়ারি মাসের সঙ্গে একদিন অতিরিক্ত যোগ করে দেন যাকে আমরা অধিবর্ষ হিসেবে চিনে থাকি। তখন ফেব্রুয়ারি মাস ২৮ দিনের বদলে ২৯ দিনে করা হয়।

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার ও বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ঃ

ইতোমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে ২০২২ সাল আর সাথে সাথে শুরু হয়ে গেছে ক্যালেন্ডার নিয়েও নানা জল্পনা কল্পনা। সাথে বাঙালি হিসেবেও সবার ই চাহিদা আছে তাদের নিজেদের সংস্কৃতির উপর। সব মিলিয়ে ইংরেজীর পাশাপাশি ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার নিয়েও অনেকের রয়েছে অনেক প্রশ্ন। তাই চলুন দেখে আসি ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার,


সরকারী হিসাব মতে, ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার বা  বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ এ বছরে সাধারণ ও নির্বাহী আদেশে মোট ২২ দিন ছুটি নিশ্চিত করা হয়েছে। কিন্তু ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf মতে এই মোট ২২ দিন সাধারণ ও নির্বাহী আদেশের ছুটির মধ্য শুক্রবার ও শনিবারের দিন কিছু ছুটি পড়ে গেছে। সেই ছুটি আলাদা ভাবে হিসাব করলে ২২ দিনে সাপ্তাহিক শুক্রবার ও শনিবারের দিন ছুটি রয়েছে ৭ দিন। মাস ভিত্তিক বিভিন্ন বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ এর সরকারি ছুটির তালিকা দেখে নেওয়া যাক-

মার্চ বা ফাল্গুন-চৈত্র ১৪২৮ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

১৭ মার্চ বা ০৩ চৈত্র ১৪২৮; জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ও শিশু দিবস।
২৬ মার্চ বা ১২ই চৈত্র ১৪২৮; স্বাধীনতা দিবস  ও জাতীয় দিবস।
অর্থাৎ, মোট ছুটি সরকারি ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার মতে দুই দিন।
 

এপ্রিল বা চৈত্র-বৈশাখ ১৪২৯/১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

৪ এপ্রিল বা ২১ চৈত্র ১৪২৮; ইস্টার সানডে।
১৪ এপ্রিল বা পহেলা বৈশাখ ১৪২৯; বাংলা নববর্ষ।
অর্থাৎ, এ মাসেও মোট ছুটি সরকারি ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার মতে দুই দিন।
অন্যদিকে, ১২ ও ১৫ এপ্রিল তথা ২৯ চৈত্র এবং ২রা বৈশাখ বৈসাবি ও পার্বত্য চট্টগ্রামের বসবাসরত অন্যান্য ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর অনুরূপ ধর্মীয় এবং সামাজিক উৎসব। সেজন্য শুধুমাত্র তাদের জন্য এই ছুটিটি নির্ধারিত করা হয়েছে।
 

মে বা বৈশাখ-জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

১ মে বা ১৮ই বৈশাখ ১৪২৯; মে দিবস।
৭ মে বা ২৪ বৈশাখ ১৪২৯; জুমাতুল বিদা।
১০ মে বা ২৭ বৈশাখ ১৪২৯; শবেকদর।
১৪ মে- ১৬ মে বা ৩০ বৈশাখ- ১লা জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯; পবিত্র ঈদুল ফিতর।
২৬ মে বা ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯; বুদ্ধপূর্ণিমা বা বৈশাখী পূর্ণিমা।
দেখা যাচ্ছে যে, এ মাসে মোট ছুটি সরকারি ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf মতে সাত দিন।


জুন বা জ্যৈষ্ঠ- আষাঢ় ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

বাংলাদেশ সরকারি আদেশ মতে জুন মাসে কোন সরকারি আলাদা ছুটি নেই। সাপ্তাহিহ ছুটি শুক্র ও শনিবার।
 
 
২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf 

জুলাই বা আষাঢ়-শ্রাবণ ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

২০-২২ জুলাই বা ৫-৭ শ্রাবণ ১৪২৯; পবিত্র ঈদুল আযহা।
এ মাসে মোট ছুটি সরকারি ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার বা ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf মতে তিন দিন।
 

আগস্ট বা শ্রাবণ-ভাদ্র ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

২৯ আগষ্ট বা ১৪ ভাদ্র ১৪২৯; পবিত্র আশুরা।
৩০ আগষ্ট বা ১৫ ভাদ্র ১৪২৯; শুভ জন্মাষ্টমী।
এ মাসেও ছুটি বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ বা ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf মতে মোট দুই দিন।
 

সেপ্টেম্বার বা ভাদ্র-আশ্বিন ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf বা বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ মতে মাসে বাংলাদেশ সরকার কোন সরকারি ছুটি রাখেনি।
 

অক্টোবর বা আশ্বিন-কার্তিক ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

১৫ অক্টোবর বা ৩০ আশ্বিন ১৪২৯; শারদীয় দূর্গোৎসব এবং বিজয়া দশমী ।
১৯ অক্টোবর বা ৩ কার্তিক ১৪২৯; পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী ।
দেখা যাচ্ছে যে, এমাসে বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯। ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার মতে মোট ছুটি দুই দিন।

নভেম্বর বা কার্তিক-অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf অনুযায়ী সরকারি হিসাবে সাধারণ ছুটি বা নির্বাহী আদেশে ছুটির কোন ছুটিই এমাসে পড়েনি।
 

ডিসেম্বর বা অগ্রহায়ণ-পৌষ ১৪২৯ ছুটির দিনঃ  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

১৬ ডিসেম্বর বা পহেলা পৌষ ১৪২৯; মহান বিজয় দিবস।
২৫ ডিসেম্বর বা ১০ পৌষ ১৪২৯; বড়দিন বা যীশু খ্রিষ্টের জন্মদিন।
অর্থাৎ, ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf অনুযায়ী এমাসে সরকারি ছুটি মোট দুই দিন।
 


এই ছিল মোটামোটি ভাবে ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার এর সরকারি ছুটির তালিকা। এছাড়া ধর্মীয় বিষয়ে প্রতিটি ধর্মের জন্য  কিছু ঐচ্ছিক ছুটি রয়েছে। যেমন-

মুসলিম ধর্মের ঐচ্ছিক ছুটিঃ ৫ দিন |  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

• ১ মার্চ বা ১৬ ফাল্গুন ১৪২৯, শব-ই-মিরাজ
• ৫ মে বা ২২ বৈশাখ ১৪২৯; ঈদ-উল-ফিতরের ২য় দিন (ঈদের পরের দ্বিতীয় দিন)
• ১২ জুলাই বা ২৮ আষাঢ় ১৪২৯; ঈদ-উল-আযহার ২য় দিন (ঈদের পরের দ্বিতীয় দিন)
• ২১ সেপ্টেম্বর  বা  ০১ আশ্বিন ১৪২৯, আখেরি চাহার সোম্বা
• ০৭ নভেম্বর বা ২২ কার্তিক ১৪২৯, ফাতেহা-ই-ইয়াজদাম 
(অতিক্রান্ত মাস বাদে দেওয়া হলো)

 ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf

হিন্দু ধর্মের ঐচ্ছিক ছুটিঃ ৮ দিন |  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

• ০১ মার্চ বা ২৬ ফাল্গুন ১৪২৯, শিবরাত্রি ব্রত
• ১৮ মার্চ বা ৪ চৈত্র ১৪২৯, দোলযাত্রা
• ৩০ মার্চ  ১৬ চৈত্র ১৪২৯, হরিচাঁদ ঠাকুরের আবির্ভাব
• ২৫ সেপেটেম্বর, ১০ আশ্বিন ১৪২৯, মহালয়া
• ৪ অক্টোবর বা ১৯ আশ্বিন ১৪২৯, শারদীয় দুর্গাপূজা ( শুভ নবমী)
• ০৯ অক্টোবর বা২৪ আশ্বিন ১৪২৯, লক্ষ্মী পূজা
• ২৪ অক্টোবর বা ৮ কার্তিক ১৪২৯, শ্যামা পূজা
(অতিক্রান্ত মাস বাদে দেওয়া হলো)

খৃষ্ট ধর্মের ঐচ্ছিক ছুটিঃ ৮ দিন |  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

•১৪ এপ্রিল বা ১ বৈশাখ ১৪২৯, পুণ্য বৃহস্পতিবার
• ১৫ এপ্রিল বা ২ বৈশাখ ১৪২৯, পুণ্য শুক্রবার
• ১৬ এপ্রিল বা ৩ বৈশাখ ১৪২৯, পুণ্য শনিবার
• ১৭ এপ্রিল বা  ৪ বৈশাখ ১৪২৯, ইস্টার সানডে
• ২৪ ও ২৬ ডিসেম্বর বা ৯ ও ১১ পৌষ ১৪২৯, যিশু খ্রিস্টের জন্মোৎসব (বড়দিনের আগে ও পরের দিন)
(অতিক্রান্ত মাস বাদে দেওয়া হলো)

বৌদ্ধ ধর্মের ঐচ্ছিক ছুটিঃ ৫ দিন |  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার

• ১৩ এপ্রিল বা ৩০ চৈত্র ১৪২৭, চৈত্র সংক্রান্তি
• ২২ জুলাই বা ৭ শ্রাবণ ১৪২৯, আষাঢ়ী পূর্ণিমা
• ০৯ সেপ্টেম্বর  বা  ২৫ ভাদ্র ১৪২৯, মধু পূর্ণিমা (ভাদ্র পূর্ণিমা)
• ০৯ অক্টোবর বা ২৪  আশ্বিন ১৪২৯, প্রবারণা পূর্ণিমা (আশ্বিণী পূর্ণিমা)
(অতিক্রান্ত মাস বাদে দেওয়া হলো)
এখানে ইসলাম, বৌদ্ধ এবং সনাতন ধর্মালম্বীদের উৎসব বিশেষত চাঁদ দেখার উপর নির্ভরশীল।

 ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf

২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf । ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf download

পিডিএফ বলতে মূলত বোঝায় কোন ফাইল এর শজ ব্যবহারযোগ্য একটি ফরম্যাট যা চাইলেই প্রিন্ট করে বের করা যায় আবার চাইলে কোন এন্ড্র্যেড ডিভাইস এ খুব সহজেই দেখা যায়। তাই ব্যবহারকারীদের সুবিধার জন্য ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার বা ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf  আকারে প্রকাশ করা হয়েছে। তাই দেরি না করে ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf download করে নিন। আর প্রয়োজনে ব্যবহার করুন। ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf download করার মাধ্যমে যেকোন তারিখ বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ এর যেকোন সময়ে দেখে নিতে পারবেন। আর সবথেকে বেশি সুবিধা হলো এই ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf টি ফোনের মধ্যেই রেখে দেওয়া যায় ফাইল করে।

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার এর পুনরাবৃত্তিঃ

আমরা সবাই জানি, ২০২২ সালে আমাদের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী আর কিছুদিনের মধ্যেই উদযাপন করতে চলেছি। ১৯৭১ সালে আমরা দীর্ঘ নয় মাস রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের মাধ্যমে আমরা পেয়েছি আমাদের অতি প্রিয় স্বাধীনতা। অন্যদিকে ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে যে, ১৯৭১ সালের ক্যালেন্ডারের সাথে এটি সম্পূর্নরূপে মিল রয়েছে ।

দুটি বছরের শেষ দিনও পড়েছে শুক্রবারে এমনকি সব মাসের দিন, তারিখ, বারের সাথেও রয়েছে সম্পূর্ণ মিল। এছাড়াও আরো দেখা গেছে, ১৯৭১ সাল ছাড়াও আরো ১১ টি বছরের ক্যালেন্ডারের সাথে রয়েছে ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf  এর হুবহু মিল। এই সাল গুলো হলো- ১৯০৯, ১৯১৫, ১৯২৬, ১৯৩৭, ১৯৪৩, ১৯৫৪, ১৯৬৫, ১৯৮২, ১৯৯৩, ১৯৯৯ ও ২০১০। 

আবার ২০২৭ সালে এই সারণির পুনঃরাবৃত্তি হবে বলে জানা গেছে। অর্থাৎ,  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf এবং ২০২৭ সালের ক্যালেন্ডার আবারো একি হবে।

২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার | ২০২২ সালের ক্যালেন্ডার pdf

বাঙালি জাতির জন্য তাদের বাংলা তারিখ অনেক গুরুত্বপূর্ণ কারণ এদের সারা বছর জুড়ে বিভিন্ন উৎসব আয়োজন লেগেই থাকে। বলা হয় বাঙালি বারো মাসে তের পার্বণের জাতি। পহেলা বৈশাখের হাল খাতা, বা হেমন্তের নবান্ন বা শীতের পিঠা-পুলির আয়োজন সব কিছুই হয় বাংলা ক্যালেন্ডার মতে। তাই দেখা যায় যে,  ২০২২ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার বা  বাংলা ক্যালেন্ডার ১৪২৯ আমাদের সামনের দিনের নানা অনুষ্ঠানের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখে।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?