অর্ডিনারি আইটি https://www.ordinaryit.com/2021/08/marketing-digital.html

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব - ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায়

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখবেন দেখুন। ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় জেনে নিন। দেখে নিন ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং কেন? ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার ও ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন কেমন সেটাও জেনে নিন।

ডিজিটাল মার্কেটিং করে কত টাকা আয় করা যায় যারা এমন প্রশ্ন করেন তাদের বলছি; আমরা প্রতিমাসে ডিজিটাল মার্কেটিং করে লক্ষাধিক টাকা আয় করছি। আপনিও আমাদের মত ডিজিটাল মার্কেটিং করে প্রতিমাসে লক্ষাধিক টাকা আয় করতে চান?

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব - ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় এর ভিডিও

ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার ও ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন কেমন সেটা জেনে নিন উপরের ভিডিও থেকে। ভিডিও দেখার ডেটা না থাকলে নিচের স্ক্রিপ্টটি পড়ুন।

ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং কেন

ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং ডিজিটাল মার্কেটিং করে কি কি করতে পারবেন আপনার এই সমস্ত প্রশ্নের উত্তর দেওয়া রয়েছে এই ভিডিওতে

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় জেনে নিন

আমি কাওসার, অর্ডিনারি আইটির এডমিন; চাকরি ছেড়ে ফ্রিল্যান্সিং করছি কেন জানেন? কারণ ফ্রিল্যান্সিং করে প্রতিমাসে আমি লাখ টাকারও বেশি আয় করি। আপনি যদি মনযোগ দিয়ে এই ভিডিওটা শেষ পর্যন্ত দেখতে পারেন; তাহলে আমি আপনাকে কথা দিচ্ছি এই ভিডিওটা আপনাকে সাহায্য করবে কিভাবে আমার মত আপনিও মাসে লক্ষাধিক টাকা ইনকাম করবেন ফিল্যান্সিং করে। 

আমার আসল উদ্দেশ্য হলো আপনি কিভাবে ফিল্যান্সিং পেশাটাকে ব্যবসাতে রুপ দেবেন সেটা শেখানো, যাতে করে আপনি মরে গেলেও আপনার ছেলে, মেয়ে, বউ বাচ্চারা যেন আপনার ব্যবসার হাল ধরতে পারে।

ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার

এখন আপনি প্রশ্ন করতে পারেন যে, ভাই আপনি মাসে এত টাকা আয় করছেন!! তাহলে সেটাই করেন! আমাদের শিখিয়ে আপনার লাভ কি?

লাভ আছে। চলুন দেখে নেওয়া যাক লাভটা কি!!

তার আগে একটা বিষয় শেয়ার করি তাহলোঃ ইনকাম মূলত ২ ধরণের। একটিভ ইনকাম ও প্যাসিভ ইনকাম। সহজ কথায় একটিভ ইনকাম হচ্ছে সেই কাজ, যেটা না করলে আপনার আর ইনকাম হয় না। যেমন; চাকরি করা, রিক্সা চালানো, চা বিক্রি করা ইত্যাদি। অন্যদিকে প্যাসিভ ইনকাম হচ্ছে সেই কাজ যেটা না করলেও আপনার ইনকাম আসতেই থাকবে। আপনি ঘুমালেও আপনার ইনকাম হবে, যেমনটা আমার হয়।

ফ্রিল্যান্সিংএও একটিভ এবং প্যাসিভ ইনকামের দুটো রাস্তাই রয়েছে। আপনি নিশ্চয় চাইবেন ফ্রিল্যান্সিং করে একটিভ ইনকাম না করে প্যাসিভ ইনকাম করতে, তাইনা? তাহলে চলুন দেখি, ফ্রিল্যান্সিং এর কোন কাজগুলো একটিভ ইনকাম এবং কোন কাজগুলো করে প্যাসিভ ইনকাম করা যায়!

ফ্রিল্যান্সিং এর কিছু একটিভ ইনকামের উদাহরণ হলো বিভিন্ন মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে কাজ করা। যেমন, আপওয়ার্ক, ফিল্যান্সার, ফাইবার ইত্যাদি। এসব মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে প্রতিদিন হুহু করে আমার আপনার মত প্রচুর ফ্রিল্যান্সার কাজ করার জন্য যোগ দিচ্ছে। সেই অনুপাতে কাজ বেশি পাওয়া যাচ্ছে না। ফলে আপনি যদি এসব মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে ফ্রিল্যান্সিং করেন এবং তা অন্যদের শেখান তাহলে একসময় আপনার কাজ পাওয়াই মুশকিল হয়ে যাবে।

তাছাড়া এসব মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে কাজ করা যেহেতু একটিভ ইনকাম। তাই বুঝতেই পারছেন ১ সপ্তাহ অসুস্থ হয়ে পড়ে থাকলে আপনি কোন কাজও করতে পারবেন না, কোনো টাকাও ইনকাম হবে না।

আমি এসব মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে আগে যাতায়েত করতাম। কিন্তু এখন তেমন করি না। কারণ আমি প্যাসিভ ইনকাম করি। আগেই বললাম প্যাসিভ ইনকাম হলো সেই ইনকাম যেখানে আপনি কাজ না করলেও টাকা আয় হতে থাকবে।

ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং কেন? ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার

ধরুন আপনি ভিডিও বানিয়ে ইউটিউবে আপলোড করেন। বুঝতেই পারছেন যত বেশি লোক আপনার ভিডিও দেখবে তত বেশি ইনকাম হবে। মানে ইউটিউবে প্রতিদিন হুহু করে যত বেশি লোক আসবে তত বেশি ইনকাম!!

আবার ধরুন আপনার একটা ওয়েবসাইট আছে প্রথম আলোর মত যেখানে বিভিন্ন সংবাদ শেয়ার করেন। বুঝতেই পারছেন যত বেশি লোক ইন্টারনেট ব্যবহার করবে তত বেশি আপনার আয় হবে।

এই যে ওয়েবসাইট বা ইউটিউবের উদাহরণ দিলাম এখান থেকে প্যাসিভ ইনকাম করা যায়। আর মজার ব্যাপার হলো এই রাস্তায় যতবেশি লোক আসবে তত বেশি সবার ইনকাম বাড়বে। 

তাহলে বুঝতেই পারছেন আমি যে কাজ করছি এই রাস্তায় যদি আরো বেশি লোক কাজ করতে আসে তাহলে আমার ইনকামও বাড়বে। এখন নিশ্চয় বুঝতে পেরেছেন আপনাদের শেখালে আমার লাভটা কি!!

তারপরও; আপনার ব্যবসার এরিয়াতে আমরা ঢুকে পড়লে আপনার ইনকাম কমে যাবে না?

আপনি তো অলরেডি জানেন যে, মহল্লার রাস্তার মোড়ে কেবল একটি দোকান থাকে আর বাজারে থাকে অনেক দোকান। বাজারে দোকানীদের প্রতিযোগি অনেক হলেও মহল্লার মোড়ের চেয়ে বাজারের দোকানে বিক্রি বেশি হয়। কারণ একটাই সেটা হলো রাস্তার মোড়ের চেয়ে বাজারে লোক সমাগম বেশি। তাই বুঝতেই পারছেন যত লোককে কাজ শেখাবো ততবেশি সবার উন্নতি হবে।

ডিজিটাল মার্কেটিং করে কত টাকা আয় করা যায়

ভাই আপনি যে আমাদের শেখাবেন, প্রতিমাসে আপনি কি আসলেই লক্ষাধিক টাকা আয় করেন?

অবশ্যই প্রমান দেবো। আমি ডিজিটাল মার্কেটিং করে প্রায় ৬ রকম উপায়ে ইনকাম করি যেগুলোর সবই আপনাদেরকে শেখাবো। ৬ উপায়ের একটি হলো গুগল এডসেন্স। শুধুমাত্র এডসেন্স থেকে কেমন ইনকাম করছি প্রতিমাসে চলুন দেখে আসি। তাহলেই বুঝতে পারবেন বাকিগুলোর কি অবস্থা!

প্রতি মাসে প্রায় লাখ টাকার মত আয় হচ্ছে দেখুন ভিডিওতে

এডসেন্সের মাধ্যমে সম্পূর্ণ প্যাসিভ ইনকাম হচ্ছে।

গুগল এডসেন্স ছাড়াও, ওয়েবসাইট সেল, লোকাল এড পাবলিশিং, মার্কেটপ্লেস ওয়েবসাইটে কাজ করা, অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং, কোর্স বিক্রি করে, ওয়েবসাইট তৈরি করে, ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করে, আর্টিকেল লিখে এবং ডিজিটাল এড এজেন্সি তৈরি কিভাবে ইনকাম করবেন তার সবকিছুই আপনাদের শেখাবো।

ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স pdf নয় ভিডিও

আমার নাম কাওসার, আমি অর্ডিনারি আইটির এডমিন। শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো আমি একজন কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার। কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং এ আমি ০৮ বছর যাবত পড়াশোনা করছি। প্রথম ৪ বছর ডিপ্লোমা ও পরের ৪ বছর বিএসসি ইঞ্জিনিয়ারিং। আমি বিগত ০৮ বছর ধরে ফ্রিল্যান্সিং পেশায় যুক্ত আছি। আমি বিগত ৫ বছর যাবত আমাদের অফিসের ক্লাসরুমে শহস্রাধিক ছাত্র/ছাত্রীকে ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণ দিয়েছি। আমি যেসময় ভিডিওটা রেকর্ড করছি, সারা বিশ্বে যত তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক বাংলা ব্লগিং ওয়েবসাইট আছে, তার মধ্যে আমাদের ওয়েবসাইট অর্ডিনারি আইটি র‍্যাংকিং এ একেবারে প্রথম সারিতে রয়েছে।

অন্যান্য প্রতিষ্ঠান তাদের কোর্সে দেখায় এটা কিভাবে করতে হয় ওটার কাজ কি জাস্ট এসব। বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠান তাদের কোর্সে লাইভ ইনকাম করে দেখাতে পারে না। টাকা ইনকাম করার উদ্দেশ্য যারা ওইসব ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের কাছে কাজ শেখার চেষ্টা করছেন, তাদের উদ্দেশ্যে আমি আর কি বলব, উনারা কি বলে শোনেন এই ভিডিওতে। এই ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সে আপনারদের লাইভ দেখাবো কিভাবে প্রতিমাসে আমি লক্ষাধিক টাকা আয় করছি, যেমনটা কিছুক্ষণ আগে আপনাদের দেখালাম।

অন্য যারা কোর্স করায় তাদের বেশির ভাগ ব্যক্তিদের ইনকামের মূল সোর্স হলো কোর্স করিয়ে টাকা কামানো। অন্য দিকে আমার মূল ইনকাম সোর্স হলো ডিজিটাল মার্কেটিং, গুগল এডসেন্স ও বিভিন্ন সার্ভিস বিক্রি করা। কোর্স থেকে আয় করাটাই আমার আসল উদ্দেশ্য না। আমি যা জানি তা আপনাদের মাঝে শেয়ার করতে চাচ্ছি, যাতে করে আপনারা যারা অনলাইন থেকে ভাল ইনকাম করতে চাচ্ছেন তারা যেন লাইভ দেখতে পান কিভাবে আমি ইনকাম করছি ও আপনারা কিভাবে শুরু করবেন। 

যারা এই কোর্সে ভর্তি হবেন তারা অর্ডিনারি আইটির ভবিষ্যতের সকল অনলাইন কোর্স ফ্রিতে করতে পারবেন। অর্ডিনারি আইটি ২০টিরও বেশি বিষয়ে অফিসের ক্লাস রুমে কোর্স করিয়ে থাকে। যখনই বাড়তি ইনকাম করার কোনো নতুন আপডেট আসবে তখনই এই কোর্সের ওয়েবসাইটে নতুন নতুন ভিডিও ক্লাস যুক্ত করা হবে। যারা একবার এই কোর্সে ভর্তি হবেন তারা সারাজীবন কোর্সে নতুন নতুন আপডেট ভিডিও পাবেন একদম ফ্রিতে।

ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সে কি লাইভ ক্লাস করানো হবে নাকি ওয়েবসাইটে গিয়ে ভিডিও দেখে কাজ শিখতে হবে?

এই কোর্সের কোনো লাইভ ক্লাস করানো হবে না। অর্ডিনারি আইটির ওয়েবসাইটে আপলোড করা ভিডিও দেখে আপনাকে কাজ শিখতে হবে। তবে আমাদের অফিসের ল্যাবরুমে কোর্স করানোর ব্যবস্থা রয়েছে কিন্তু। যাইহোক আপনি যদি অনেক দূরে বসবাস করেন তাহলে আপনার নিজের বাড়িতে বসেই সবকিছু শিখতে পারবেন অনলাইন কোর্সের মাধ্যমে। এজন্য আপনার সচল ইন্টারনেট কানেকশন থাকতে হবে।  আমি যেহেতু বিগত ৫ বছর যাবত ফ্রিল্যান্সার প্রশিক্ষক হিসেবে কাজ করছি সেহেতু আমি জানি লাইভ ক্লাস নিলে বা অফিসের ক্লাস রুমে শেখালে অনেক ছাত্র/ছাত্রীই ক্লাস শেষে তেমন কিছু মনে রাখতে পারবে না। যদি ওয়েবসাইটে আপলোড করা ভিডিও দেখে কাজ শিখতে বলি, তাহলে যেকোনো ছাত্র/ছাত্রী তার ইচ্ছেমত সময়ে বাড়ি থেকে শুয়ে বসে ক্লাস করতে পারবে এবং কোনো কিছু ভুলে গেলে আগের ভিডিও দেখে আবার প্র্যাকটিস করে নিতে পারবে।

তাই বুঝতেই পারছেন অফিসের ক্লাস রুমে বা  লাইভ ক্লাস করার থেকে ওয়েবসাইটে ভিডিও দেখে ক্লাস করা খুবই উপকারী।

ডিজিটাল মার্কেটিং ক্লাস করতে গিয়ে বিভিন্ন সমস্যা হলে কিভাবে সমাধান পাবো? কে সাহায্য করবে?

আপনারা যারা কোর্সে ভর্তি হবেন তাদের সবাইকে নিয়ে আমাদের একটি প্রাইভেট ফেসবুক গ্রুপ থাকবে, যেখানে আমিও থাকবো। যখনই আপনার কোনো সমস্যা হবে তখনই গ্রুপে পোস্ট করতে পারবেন। তাছাড়া মাঝে মাঝে আমি গ্রুপে লাইভ ভিডিও কলে সাক্ষাত করব আপনাদের সাথে। তখন যার যা সমস্যা আছে শেয়ার করতে পারবেন। ইমার্জেন্সি দরকারে আমাদের হেল্পলাইন নম্বরে কল করে, ফেসবুক ম্যাসেঞ্জারে বা হোয়াটসঅ্যাপেও যোগাযোগ করতে পারবেন। ফ্রিল্যান্সিং শেখার ক্ষেত্রে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হলো এমন ব্যক্তির কাছ থেকে কাজ শেখা যে আপনার কোর্স করা কালীন বিভিন্ন সমস্যার সমাধান দিতে পারবে। তা না হলে তো সবাই একা একা ইউটিউব ভিডিও দেখেই বিশাল ফ্রিল্যান্সার হয়ে যেত। অর্ডিনারি আইটিতে কাজ শিখলে সংশ্লিষ্ট বিষয়ে সারাজীবন বিভিন্ন সমস্যার ফ্রি সাপোর্ট পাবেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শেষে কি সার্টিফিকেট দেওয়া হবে?

কোর্স শেষে সমাপনী পরীক্ষা নেওয়া হবে ১০০ মার্কের। যে যত মার্ক পাবেন সেটাই সার্টিফিকেটে উল্লেখ থাকবে। তারমানে যারা পরীক্ষা দেবে সবাই সার্টিফিকেট পাবে। SSC HSCর মত আমাদের ওয়েবসাইটে আপনার সার্টিফিকেট অনলাইন ভেরিফিকেশন করতে পারবেন।

আমার তো ল্যাপটপ বা ডেস্কটপ নাই। মোবাইল দিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স করতে পারব কি?

এই ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সে যা যা শেখানো হবে তার অনেককিছুই স্মার্টফোন দিয়ে করতে পারবেন এবং সমস্ত ক্লাস ভিডিও মোবাইল থেকে দেখতে পারবেন। তবে স্বাচ্ছন্দে কাজ করার জন্য আপনার অবশ্যই ডেস্কটপ বা ল্যাপটপ থাকতে হবে। যদি কোর্স করা কালীন সময়ের মাঝে আপনার কম্পিউটার কেনার ইচ্ছে ও সামর্থ কোনোটাই না থাকে তাহলে এই কোর্স করে খুব একটা লাভ হবে না।

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে কোর্স শুরু করব? কোর্স ফি কত?

এই কোর্সের বেসিক কিছু ভিডিও ফ্রিতে সবার দেখার জন্য উন্মুক করে দেওয়া হয়েছে আমাদের ওয়েবসাইটে। যারা এই কোর্সের ফ্রি ভিডিওগুলো দেখবেন তারা অর্ডিনারি আইটি থেকে কোনো সাপোর্ট বা ভবিষ্যতে ইনকাম বাড়ানোর আপডেট টিপস ও ট্রিকসের ভিডিও পাবেন না। আর যদি ভবিষ্যতের আপডেট ভিডিও, অন্যন্য ২০টিরও বেশি ফ্রি অনলাইন কোর্স এবং সংশ্লিষ্ট যেকোনো সমস্যার সারাজীবনের সাপোর্ট পেতে চান তাহলে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সে ভর্তি হতে হবে। এই ভিডিওর নিচে, ডেসক্রিপশনে বা কমেন্টে কোর্সের সূচিপত্র ও কোর্স ভিডিওর লিংক দেওয়া আছে। সেখানে কোর্সে ভর্তি হওয়ার যাবতীয় তথ্য দেওয়া রয়েছে। (so enjoy it) আপনাদের ফ্রিল্যান্সিং করার যাত্রা শুভ হোক এই কামনা করে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সের ট্রেইলার ভিডিওটা এখানেই শেষ করছি।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?